রামগঙ্গা এলাকায় ব্রিজের গোড়ায় সড়ক ধসে পড়েছে ॥ ঢাকা-সিলেট পুরাতন মহাসড়কে যান চলাচল বন্ধ-
মোঃ মামুন চৌধুরী ॥ বৃষ্টি হলেই হবিগঞ্জের পাহাড়ি এলাকায় টিলা ধস হচ্ছে। এবার টিলা নয় চুনারুঘাটের রামগঙ্গা এলাকায় ব্রিজের গোড়া থেকে মাটি সরে গিয়ে সড়ক ধসে পড়েছে ছড়ায়। এ কারণে ঢাকা-সিলেট পুরাতন মহাসড়কে যান চলাচল বন্ধ রয়েছে।
সূত্র জানায়, ১০ সেপ্টেম্বর রবিবার প্রচন্ড বৃষ্টিতে পাহাড়ি ঢলে পুরাতন ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের রামগঙ্গা চা বাগান ব্রিজের গোড়ার মাটি সরতে থাকে। এক পর্যায়ে ১১ সেপ্টেম্বর দিবাগত রাতে এ ব্রিজটির এক পাশের ১০/১৫ ফুট সড়ক ধসে ছড়ায় চলে যায়। এর আগে ১১ জুন ওই ব্রিজের অদূরে চন্ডিছড়া চা বাগানে ব্রিজের এক পাশের গোড়া থেকে মাটি সরে গিয়েছিল। এতে ৬০ ফুট সড়ক ধসে পড়েছিল। এটি মেরামত করতে মাসখানেক লেগে যায়। এর প্রায় তিন মাস যেতে না যেতেই সর্বশেষ ১১ সেপ্টেম্বর রবিবার রাতের বেলা রামগঙ্গা ব্রিজ থেকে মাটি সরে গিয়ে সড়ক ধসে পড়ে। রবিবার ভোরে একটি মাইক্রোবাস এ ব্রিজটি অতিক্রম করতে চাইলে দুর্ঘটনার শিকার হয়। এতে করে গাড়ীতে থাকা ৫ যাত্রী আহত হন। আহতরা স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা নিয়েছেন।
হবিগঞ্জ সড়ক ও জনপথ বিভাগের উপ-বিভাগীয় প্রকৌশলী হামিদুল ইসলাম জানান, রবিবার সারারাত বৃষ্টি হয়েছে। এতে করে  ১২ থেকে ১৫ ফুট উচ্চতায় পানি জমে যায়। সেই পানি নিষ্কাশন হতে গিয়েই রাস্তা ক্ষতিগ্রস্ত হয়। ব্রিজের পাশে প্রতিরক্ষা দেয়াল ছিল, সেটি ভেঙ্গে গেছে। সোমবার সকাল থেকেই তিনি ঘটনাস্থলে ছিলেন। ২/৩ দিনের মধ্যে বিকল্প ব্যবস্থায় সড়কটি চালু করা হবে। পরবর্তীতে দ্রুত সময়ে টেন্ডারের মাধ্যমে স্থায়ী সমাধান করা হবে বলে জানান এই কর্মকর্তা।
নামপ্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় কয়েকজন জানান, রামগঙ্গা ছড়া থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের ফলে এ ব্রিজের পাশে সড়কটি ধসে গেছে।
চুনারুঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সিরাজাম মুনিরা বলেন, ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি, ব্রিজের পাশে সড়কটি কি কারণে দেবে গেল তা জানাতে সড়ক ও জনপথ বিভাগের হবিগঞ্জের প্রকৌশলীর কাছে চিঠি দেয়া হয়েছে। ব্রিজের পাশে ধসে পড়া স্থান দ্রুত সংস্কার করতে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।
-
প্রথম পাতা