উন্নয়নে সন্তুষ্ট হয়ে এমপি আবু জাহিরকে আবারো নির্বাচিত করার প্রতিশ্রুতি-
১৪৬ কোটি টাকা ব্যয়ে রাস্তা নির্মাণ কাজের উদ্বোধনে আনন্দিত হবিগঞ্জ-লাখাইবাসী
স্টাফ রিপোর্টার ॥ হবিগঞ্জ, লাখাই ও শায়েস্তাগঞ্জের শতভাগ বিদ্যুতায়ন নিশ্চিত, যোগাযোগ ব্যবস্থা, শিক্ষা ও স্বাস্থ্যসহ সকল ক্ষেত্রেই অব্যাহত রয়েছে উন্নয়নের ধারা। বিগত ৪০ বছরে যে উন্নয়ন সম্ভব হয়নি, অ্যাডভোকেট মোঃ আবু জাহির এমপি হয়ে ৯ বছরে এর চেয়ে বেশি উন্নয়ন করেছেন। শুধু হবিগঞ্জ-লাখাইবাসী নন তার উন্নয়নের ফল ভোগ করছেন জেলার সর্বস্তরের জনগণ। সর্বশেষ ১৪৬ কোটি টাকা ব্যয়ে হবিগঞ্জ-লাখাই অ্যাডভোকেট মোস্তফা আলী সড়ক উন্নয়ন কাজ শুরু হয়েছে। এতে আমরা অত্যন্ত আনন্দিত। পহেলা বৈশাখ দুপুরে ১৪৬ কোটি টাকা ব্যয়ে হবিগঞ্জ-লাখাই অ্যাডভোকেট মোস্তফা আলী সড়ক হবিগঞ্জ অংশের উন্নয়ন কাজ ও ব্রীজ নির্মাণ কাজের উদ্বোধনকালে প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করার সময় স্থানীয় লোকজন এসব কথা বলেন।
স্থানীয়রা জানান, অক্লান্ত পরিশ্রমের মাধ্যমে বলভদ্র সেতু নির্মাণের মাধ্যমে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে ৩৫ কিলোমিটার দূরত্ব কমিয়ে এনেছিলেন অ্যাডভোকেট মোঃ আবু জাহির। এবার শুরু হয়েছে রাস্তা উন্নয়নের কাজ। রাস্তাটি ব্যবহার করে হবিগঞ্জ তথা লাখাইবাসী ঢাকা থেকে দিনের কাজ দিনে শেষ করে বাড়িতে ফিরতে পারবেন। হবিগঞ্জ-লাখাই সড়কে শেখ হাসিনা মেডিকেল কলেজসহ এই রাস্তার ব্যবহারে বাণিজ্যিকভাবে ব্যাপকভাবে এগিয়ে যাবে হবিগঞ্জ-লাখাই। এ সময় তারা অ্যাডেভোকেট মোঃ আবু জাহির এমপির উন্নয়ন কাজে সন্তুষ্ট হয়ে আগামী নির্বাচনেও তাকে দলমত নির্বিশেষে ভোট দিয়ে নির্বাচিত করার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন।
রাস্তা নির্মাণ কাজের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন ও মোনাজাত শেষে লুকড়া ইউনিয়ন পরিষদে কমপ্লেক্স মাঠে এক জনসভায় বক্তৃতা করেন এমপি আবু জাহির। এ সময় তিনি বলেন, আমি ছাত্রজীবন থেকেই জনগণের জন্য রাজনীতি করে আসছি। বিগত দুইবার হবিগঞ্জ-লাখাবাসী আমাকে নির্বাচিত করার পর জনগণের উন্নয়নেই দিনরাত পরিশ্রম করে যাচ্ছি। আমার নির্বাচনী এলাকাবাসীর জন্য কিছু করতে পারলে নিজেও মন থেকে শান্তি পাই। হবিগঞ্জ-লাখাাইবাসী আমাকে সর্বোচ্চ সম্মান দেখিয়েছেন। এর চেয়ে বেশি আমার চাওয়ার নেই। বাকী জীবনটাও তিনি জনগণের উন্নয়নে কাজ করতে চান বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।
লুকড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি রফিক আলীর সভাপতিত্বে জনসভায় অন্যান্যের মাঝে উপস্থিত ছিলেন লাখাই উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট মুশফিউল আলম আজাদ। জনসভায় আওয়ামী লীগ ও সকল সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীসহ স্থানীয় লোকজন উপস্থিত ছিলেন।

-