গণতন্ত্র ও ভোটাধিকার ফিরিয়ে আনতে খালেদা জিয়ার নেতৃত্বের বিকল্প নেই ॥ জি কে গউছ-
স্টাফ রিপোর্টার ॥ বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সমবায় বিষয়ক সম্পাদক ও হবিগঞ্জ জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মেয়র আলহাজ্ব জি কে গউছ বলেছেন- দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া বাংলাদেশের ১৭ কোটি মানুষের নেত্রী। স্বৈরাচার এরশাদ বিরোধী আন্দোলনে নেতৃত্ব দিয়ে এ দেশে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করেছেন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া। তাই খালেদা জিয়া কারাগারে বন্দি মানেই বাংলাদেশের গণতন্ত্র বন্দি। গণতন্ত্রের নেত্রী খালেদা জিয়াকে জেলে রেখে বিএনপি কোন নির্বাচনে যাবে না, বাংলাদেশে কোন নির্বাচন হতে দেয়া হবে না, দেশের জনগণ সেই নির্বাচন গ্রহন করবে না।
মেয়র বলেন- গণতন্ত্র আজ কারাবন্দি, চলছে একদলীয় শাসন। তাই আবারও দেশের গণতন্ত্র ও মানুষের ভোটাধিকার ফিরিয়ে আনতে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বের বিকল্প নেই। খালেদা জিয়ার মুক্তির মধ্য দিয়েই ফ্যাসিষ্ট আওয়ামীলীগ সরকারের পতন নিশ্চত করা হবে। এ জন্য কঠিন আন্দোলনের প্রস্তুতি নিতে দলীয় নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বান জানান মেয়র জি কে গউছ।
তিনি গতকাল বৃহস্পতিবার বিকালে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে শায়েস্তানগরস্থ বিএনপির কার্যালয়ে এক প্রতিবাদ সভায় এসব কথা বলেন। লাখাই উপজেলা যুবদলের উদ্যোগে এই সভা অনুষ্ঠিত হয়।
লাখাই উপজেলা যুবদলের আহ্বায়ক শাহ আলম গোলাপের সভাপতিত্বে ও সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক আরিফ আহমেদ রুপমের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জেলা যুবদলের সভাপতি আজিজুর রহমান কাজল, সাধারণ সম্পাদক মিয়া মোঃ ইলিয়াছ, সাংগঠনিক সম্পাদক জালাল আহমেদ, লাখাই উপজেলা যুবদলের যুগ্ম আহ্বায়ক তাউছ মিয়া, মাহবুবুল আলম মালু, হবিগঞ্জ পৌর যুবদলের আহ্বায়ক সফিকুর রহমান সিতু, যুগ্ম আহ্বায়ক মুর্শেদ আলম সাজন, যুবদল নেতা মাহমুদুল হাসান, মঞ্জুর উদ্দিন মঞ্জু, নজরুল ইসলাম প্রমুখ।
-