শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলা নির্বাচন প্রচারনা জমজমাট ॥ উন্ন্য়নের স্বার্থে নৌকায় ভোট চাচ্ছেন সমর্থকরা-
মোঃ মামুন চৌধুরী ॥ শায়েস্তাগঞ্জ পৌরসভা ও ব্রাহ্মণডোরা, নূরপুর ও শায়েস্তাগঞ্জ ইউনিয়ন নিয়ে প্রায় সাড়ে ৩৯ বর্গ কিলোমিটার আয়তনের শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলা । লোক সংখ্যা দেড়লক্ষাধিক। ভোটার প্রায় ৪৫৬৪১ জন। ১৮ জুন এ উপজেলায় নির্বাচন। তাই পুরোদমে চলছে প্রচারণা। প্রচারে মুখরিত শহর ও গ্রাম। নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে তিনজন প্রার্থী আছেন। মহিলা ও পুরুষ ভাইস চেয়ারম্যান পদে ১০ জন নিয়ে মোট ১৩ জনের প্রতিক লড়াই জমে উঠেছে। আর মাত্র কয়েকদিন পরেই অপেক্ষার শেষ হবে। প্রার্থীরা কর্মী সমর্থক নিয়ে প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন। চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী হবিগঞ্জ সদর উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রশিদ তালুকদার ইকবাল নৌকা নিয়ে, স্বতন্ত্র প্রার্থী বিএনপি নেতা আলহাজ্ব গোলাম কিবরিয়া চৌধুরী বেলাল আনারস ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি আলী আহমেদ খান ঘোড়া প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।
জামাল আহমেদ দুলাল, খায়রুল আলম কাউন্সির, তাহির মিয়া খান কাউন্সিলর, সৈয়দ এবাদুল হক শাহীন, উস্তার মিয়াসহ কয়েক জন সমর্থক বলেন- শায়েস্তাগঞ্জ ইউনিয়ন ছিল। আওয়ামী লীগ সরকার ক্ষমতায় ছিল বলেই পর্যায়ক্রমে পৌরসভা, থানা ও সর্বশেষ উপজেলা হয়েছে। এখানে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী জয়ী হলে ব্যাপক উন্নয়ন হবে।  উন্নয়নের স্বার্থে সমর্থকরা নৌকাকে জয়ী করতে স্বেচ্ছায় কাজ করে যাচ্ছে। পৌরসভার সাবাসপুর এলাকার ভোটার কামাল মিয়া জানান- উন্নয়ন চাই। তাই নৌকায় ভোট দিব। উপজেলা নির্বাচনে শহরের দোকানপাট, বাসা ও গ্রামের বাড়ি বাড়ি একই আলোচনা উন্নয়ন চাই।
চেয়ারম্যানদের পাশাপাশি ভাইস চেয়ারম্যান পদে উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি গাজিউর রহমান ইমরান (মাইক), বিএনপি নেতা সৈয়দ তানবির আহমেদ জুয়েল (চশমা), আওয়ামী লীগ নেতা বদরুল আলম দিপন (টিউবওয়েল), খন্দকার শফিক মিয়া সরদার (তালা), মো. আব্দুল মতিন মাষ্টার (বই) ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে পৌর মহিলা আওয়ামী
লীগের সভাপতি সাবেরা সুলতানা হ্যাপী (কলস), মমতাজ বেগম ডলি (প্রজাপতি), রুবিনা আক্তার (ফুটবল), পারভিন আক্তার (হাঁস) ও মুক্তা আক্তার (পদ্মফুল)  প্রতীক নিয়ে প্রচারণায় রয়েছেন।
-
প্রথম পাতা